মিড-ডে-মিল বিতরণের কর্মসূচিতে কতজন শিক্ষক অংশগ্রহণ করবে তা নিয়ে শুরু হয়েছে বিতর্ক

11
মিড-ডে-মিল বিতরণের কর্মসূচিতে কতজন শিক্ষক অংশগ্রহণ করবে তা নিয়ে শুরু হয়েছে বিতর্ক

মে মাসের শুরু থেকেই রাজ্যের প্রতিটি স্কুলে মিড ডে মিল বিতরণের কর্মসূচি শুরু হতে চলেছে। রাজ্য সরকারের তরফ থেকে এই সংক্রান্ত একটি নির্দেশিকা প্রকাশ করা হয়েছে। তবে রাজ্যের এই নির্দেশিকাকে কেন্দ্র করে শিক্ষক মহলে এক নতুন বিতর্ক দানা বেঁধেছে। কারণ রাজ্য সরকার উক্ত নির্দেশিকায় উল্লেখ করে দেননি কতজন শিক্ষককে বাধ্যতামূলকভাবে মিড-ডে-মিল বিতরণের কর্মসূচিতে অংশগ্রহণ করতে হবে।

এই করোনা পরিস্থিতি এবং ভোট পরিস্থিতিতে কতজন শিক্ষককে এই কাজে নিযুক্ত করা যাবে তাই নিয়ে বিতর্ক দেখা দিয়েছে স্কুলগুলিতে। কারণ এই করোনা পরিস্থিতিতে ছাত্র-ছাত্রীদের অভিভাবকদের হাতে মিড ডে মিলের খাদ্য সামগ্রী তুলে দেওয়ার জন্য যত জন শিক্ষকের প্রয়োজন হয়, তারা প্রত্যেকেই স্কুলে উপস্থিত না থাকতেও পারেন।

বেশ কিছু স্কুলের শিক্ষকরা মিড-ডে-মিল বিতরণের দিন তিন দিন থেকে বাড়িয়ে পাঁচদিন করার দাবি জানাচ্ছেন। অনেকেই আবার এই পরিস্থিতিতে স্কুলের নাও আসতে পারেন। বেশ কিছু স্কুলের প্রধান শিক্ষক জানাচ্ছেন, এই করোনা পরিস্থিতিতে রাজ্য শিক্ষা দপ্তর যেখানে কতজন শিক্ষককে স্কুলে আসতে হবে সে সম্পর্কে স্পষ্ট করে কিছু জানায়নি সেখানে শিক্ষকদের স্কুলে আসার জন্য জোরাজুরি করা যায় না।

প্রধান শিক্ষকদের অনেকে আবার মনে করছেন, এই পরিস্থিতিতে বহু ছাত্র-ছাত্রীর পরিবারে সংকট দেখা দিয়েছে। তাই শিক্ষকদের যদি নির্দিষ্ট সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে মিড-ডে-মিল বিতরণের কাজে এগিয়ে আসাই উচিত বলে মনে করছেন তারা।