করোনা পরিস্থিতিতেও দুর্দান্ত কামাই এই বাজারে

7
করোনা পরিস্থিতিতেও দুর্দান্ত কামাই এই বাজারে

আপনি কি নিজেকে ক্রিয়েটিভ মনে করেন? আর আপনি কি বিজনেসে আগ্রহী? তাহলে বলা যেতে পারে এই সুযোগ কেবলমাত্র আপনার জন্যই। কারণ আপনার ক্রিয়েটিভিটিকে কাজে লাগিয়ে ব্যবসার আপনি মোটা টাকা অর্জন করতে পারবেন। বর্তমানে ভারতে বিয়ের বাজার সম্পর্কে যদি হিসেব করা যায় তাহলে মোট বাজারমূল্য দাঁড়াবে 50 বিলিয়ন ডলার। সংখ্যাটা শুনে অবাক হচ্ছেন নিশ্চয়ই, কিন্তু সত্যি এটাই। এই করো না পরিস্থিতির মধ্যেও বিয়ের বাজারে একটুও মন্দা নেমে আসেনি।

কারন মানুষ এই অতি মাড়ির মধ্যেও বিয়ে করেই যাচ্ছে। বিয়ে হল মানুষের জীবনের প্রথম এচিভমেন্ট যেটাকে স্মরণীয় করে রাখার জন্য প্রচুর অর্থ খরচ করে তারা। আর সেই কারণেই বর্তমানে ওয়েডিং প্ল্যানার দের দারুন চাহিদা রয়েছে বাজারে। আর সেই কারণেই এখন অনেক ইনস্টিটিউট রয়েছে যারা কিনা এই ধরনের কোর্স করিয়ে থাকেন। ওয়েডিং প্ল্যান নিয়ে ডিপ্লোমা, সার্টিফিকেট কোর্স সব ধরনের অপশন রয়েছে। অনেকে আবার ইভেন্ট ম্যানেজমেন্ট নিয়ে পড়াশোনা করে থাকে, তারাও পরবর্তীতে ওয়েডিং প্ল্যানার হতে পারে।

বর্তমানে এই ওয়েডিং প্ল্যানার দের জন্য বিয়ে এখন অনেকটাই জটিল থেকে সহজ হয়ে গেছে। মোটকথা এখনকার বিয়ে থিমের ওপর নির্ভর করে হয়। প্রথমে ওয়েডিং প্ল্যানের মূল কাজ হলো গ্রাহকদের সাথে দোকানদারদের মিল ঘটানো। আর সবকিছু ঠিক হয়ে গেলেই কেল্লাফতে, মোটকথা গ্রাহকদের পছন্দমত সমস্ত কাজ করে দেয় এই ওয়েডিং প্ল্যানাররা। আর এই ধরনের গুরুদায়িত্ব ঘাড়ে নিয়ে সমস্ত কিছু পূরণ করার জন্য অর্থ খরচ করতেও দ্বিধাবোধ করে না গ্রাহকেরা। তবে হ্যাঁ এই পেশায় ক্রিয়েটিভিটি প্রফেশনাল স্কিল এর সাথে সাথে মাল্টিটাস্কিং ক্ষেত্রেও অভিজ্ঞতা থাকতে হয়। যাতে তৎক্ষণাৎ সঠিক সিদ্ধান্ত নেওয়া সম্ভব হয়।