তাইওয়ান দখলের লড়াইয়ে নামতে চলেছে চীন, দক্ষিণ পূর্ব উপকূলে মোতায়েন করছে সেনা

23
তাইওয়ান দখলের লড়াইয়ে নামতে চলেছে চীন, দক্ষিণ পূর্ব উপকূলে মোতায়েন করছে সেনা

তাইওয়ান দখলের লড়াইয়ে নামতে চলেছে চীন। চীনের দক্ষিণ পূর্ব উপকূলে বিপুল সংখ্যক চীনা সেনাবাহিনী মোতায়েন করতে দেখে অন্তত পক্ষে এমনটাই আশঙ্কা প্রকাশ করছেন সামরিক বিশেষজ্ঞরা। তাইওয়ানের দখলদারি নিয়ে দীর্ঘদিন ধরেই চীন এবং স্ব-শাসিত দ্বীপ তাইওয়ানের মধ্যে বিতর্ক চলছে। সম্প্রতি, চীনা প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং সেনাবাহিনীকে যুদ্ধের জন্য প্রস্তুত থাকার নির্দেশ দিয়েছেন।

তার উপর আবার দক্ষিণ পূর্ব উপকূলে এত বিরাট সংখ্যক সেনাবাহিনী মোতায়েন করতে দেখে স্বাভাবিকভাবেই তাইওয়ানকে কেন্দ্র করে চীনের পরবর্তী পদক্ষেপ নিয়ে সন্দেহ প্রকাশ করছেন কূটনৈতিক বিশেষজ্ঞরা। উল্লেখ্য, যুদ্ধের প্রস্তুতি নিয়ে চীনের প্রেসিডেন্টের নির্দেশের পরেই তাইওয়ান সীমান্তে সেনা মোতায়েন করতে শুরু করেছে চীনের পিপলস লিবারেশন আর্মি।

সেনা মোতায়েনের পাশাপাশি, ডিএফ-১১এস এবং ডিএফ-১৫এস মিসাইলের বদলে অত্যাধুনিক ডিএফ-১৭ হাইপারসনিক মিসাইল মোতায়েন করা হয়েছে ওই এলাকায়। এই অত্যাধুনিক মিসাইলটি দূরের যেকোনো লক্ষ্যবস্তুতে নির্ভুল ভাবে আঘাত হানতে সক্ষম। প্রসঙ্গত, চীন বরাবর তাইওয়ানকে নিজেদের অবিচ্ছেদ্য অংশ বলে দাবি করে এসেছে। তবে তাইওয়ানের বাসিন্দারা কোনোকালেই চীনের আধিপত্য স্বীকার করতে রাজি নন।

কিন্তু তাতে বিন্দুমাত্র বিচলিত নয় চীন। চীনা প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং আগেও একবার আভাস দিয়েছিলেন, তাইওয়ান দখল করতে প্রয়োজনে সেনা নামাতে দ্বিধা করবেন না তিনি। বিগত বেশ কয়েক বছর ধরেই তাইওয়ান দখলের প্রচেষ্টা চালাচ্ছে চীন। উল্লেখ্য, তাইওয়ানের প্রতি চীনের আগ্রাসী মনোভাবের বরাবর বিরোধিতা করেছে আমেরিকা। এবার সীমান্তে সেনা মোতায়েনকে কেন্দ্র করে আমেরিকার ভূমিকা কি হবে তা জানতে উদগ্রীব কূটনৈতিক বিশেষজ্ঞরা।