মত পাল্টালেন বাবুল! বহাল থাকবেন সংসদ পদে

10
মত পাল্টালেন বাবুল! বহাল থাকবেন সংসদ পদে

এই মুহূর্তে রাজনৈতিক মহলের সর্বাধিক চর্চার বিষয়বস্তু হলেন বাবুল সুপ্রিয়। ফেসবুকে একটি পোস্ট করে তিনি দল ত্যাগ করার আভাস দিয়েছেন। শুধু দলত্যাগই নয়, বাবুল সুপ্রিয় রাজনীতি ছেড়ে দেওয়ার পরিকল্পনা করেছিলেন। তেমনটাই অন্তত তিনি তার ফেসবুক পোস্টে উল্লেখ করেন। তবে সেই ঘোষণার কয়েক ঘণ্টার ব্যবধানেই মত পাল্টে ফেললেন বাবুল। বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি জে পি নাড্ডার সঙ্গে বৈঠকের পর তিনি জানালেন যে বিজেপির সাংসদ পদ তিনি ত্যাগ করবেন না।

তবে রাজনীতির সঙ্গে তিনি জড়িত থাকবেন না বলে নিজের সিদ্ধান্তে এখনো অনড় রয়েছেন। সোমবার সন্ধেয় দিল্লিতে বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি জেপি নাড্ডার সঙ্গে বৈঠকের পর সংবাদমাধ্যমের সামনে তিনি ঘোষণা করেন এবার থেকে তিনি আর রাজনৈতিক কর্মকাণ্ডের সঙ্গে জড়িত থাকবেন না। তবে বিজেপির সাংসদ পদ ধরে রাখবেন তিনি। দলের শীর্ষ নেতৃত্ব এবং আসানসোলের মানুষের কথা বিবেচনা করেই তিনি এমন সিদ্ধান্ত নিয়েছেন বলে জানিয়েছেন।

শনিবার বাবুল সুপ্রিয় দলত্যাগ করার সিদ্ধান্ত ঘোষণা করার পর থেকেই কার্যত রাজনীতি তাকে নিয়ে জোর গুঞ্জন শুরু হয়। বিজেপির অস্বস্তি ক্রমশ বাড়তে থাকে। এমতাবস্থায় বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি জে পি নাড্ডা রাতেই তাকে ফোন করে দল ত্যাগ করতে বারণ করেন। এরপর নাড্ডার বাড়িতেই বাবুল সুপ্রিয়কে ডেকে পাঠানো হয়। সেই বৈঠকের পর এই সংবাদমাধ্যমের কাছে তিনি জানান যে রাজনীতি থেকে সরে আসার পরিকল্পনা তিনি ত্যাগ করেননি। তবে আসানসোলের সাংসদ পদের দায়িত্ব তিনি পালন করবেন।

এ প্রসঙ্গে তার বক্তব্য, দলীয় নেতৃত্ব তাকে এই বিষয়ে বুঝিয়েছেন। পাশাপাশি আসানসোলের বহু মানুষের থেকে মেসেজ পেয়েছেন তিনি। সকলেই চাইছেন তিনি যাতে সাংসদ পদ ধরে রাখেন। তাই তিনি তার মেয়াদ কাল পর্যন্ত সাংসদের দায় দায়িত্ব পালন করার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। সাংসদ হিসেবে তিনি সমস্ত প্রকল্পের কাজের তত্ত্বাবধান করবেন। আসানসোলের মানুষদের জন্য কাজ করবেন তিনি।