ডবল কুসুমের ডিম খাচ্ছেন নাকি? এর ক্ষতিকারক দিক জেনে নিন

10
ডবল কুসুমের ডিম খাচ্ছেন নাকি? এর ক্ষতিকারক দিক জেনে নিন

এখনও ডবল কুসুমের ডিম খেতে অধিকাংশ মানুষ স্বচ্ছন্দ বোধ করেন না। একটি ডিমে দু’টি কুসুম দেখা দেয় যখন, একটি মুরগি একই খোসার মধ্যে দু’টি কুসুম ছেড়ে দেয়। জোড়া কুসুম সাধারণত অল্প বয়স্ক মুরগির ডিমেই পাওয়া যায়।

যেহেতু তাদের প্রজনন ক্ষমতা পুরোপুরি পরিপক্ক হয়নি, তারা পর্যায়ক্রমে একটির পরিবর্তে দু’টি কুসুম নিঃসরণ করে। এমনকি  এই ধরনের ডিমের মধ্যে রক্তও সৃষ্টি হয়ে যায়।তাই ডিমগুলির দাম কম হয়। সে কারণেই ছোটখাটো কেকের কারখানাতে চলে যায় এই লাল ডিম।

শিয়ালদহ দক্ষিণ শাখার খাবারের দোকানগুলোতে ,এই লাল ডিম সেদ্ধ বিক্রি হয়। ওই দোকানে গিয়ে জিজ্ঞাসা করলে জানায়,ওটি ডবল কুসুমের ডিম। পরে ডিম কেটে দেখা গেল,ডবল কুসুমের কোনো অস্তিত্ব নেই।

পরে স্বীকার করে নেয় ওটি লাল ডিম।তবে এই বিশেষজ্ঞরা বলছেন,লাল ডিম খাওয়া স্বাস্থ্যের পক্ষে ক্ষতিকর। ডবল কুসুমের ডিম বলে, যা দাবি করা হচ্ছে, সেই বিষয়ে শিয়ালদহ বৈঠক খানা ডিম ব্যবসায়ীদের দাবি,সপ্তাহে এই ডবল কুসুম ডিম ১০০-১২০ পেটি পর্যন্ত আসে। তবে সেই ডিম খুব কম লোক পায়।