কৃষকদের নামের তালিকা পাঠালেও তাদের অ্যাকাউন্ট নম্বর দেয়নি, ফের রাজ্য সরকারকে তোপ অমিত শাহের

6
কৃষকদের নামের তালিকা পাঠালেও তাদের অ্যাকাউন্ট নম্বর দেয়নি, ফের রাজ্য সরকারকে তোপ অমিত শাহের

কেন্দ্রীয় সরকারি প্রকল্পগুলি পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় রাজ্যে চালু হতে দিচ্ছেন না! এমন অভিযোগ ইতিপূর্বে বহুবার উঠেছে। প্রশ্ন তুলেছেন কেন্দ্রীয় নেতৃত্বরা। একুশের বিধানসভা নির্বাচনের প্রেক্ষাপটে অবশ্য কিছুটা হলেও ঝুঁকেছে রাজ্য সরকার। কেন্দ্রীয় সরকারের আয়ুষ্মান প্রকল্পের পরিপূরক হিসেবে রাজ্যের সর্বস্তরের মানুষের জন্য চালু হয়েছে স্বাস্থ্য সাথী প্রকল্প।

আবার কেন্দ্রীয় সরকারের কিষান সম্মান নিধি যোজনা নিয়েও কেন্দ্র এবং রাজ্যের মধ্যে বহুদিন যাবৎ বহু তরজা চলেছে। কিন্তু ভোট বড় বালাই। বঙ্গ বিজেপি শিবিরের তরফ থেকে ক্রমাগত সমালোচনার মুখে পড়ে শেষ-মেষ অবশ্য এখানেও নতি স্বীকার করেছে রাজ্য। মমতা সরকার জানিয়ে দিয়েছে, রাজ্যে কৃষক বন্ধু প্রকল্প রয়েছে। তা বাদেও কৃষকরা যদি কেন্দ্রের তরফ থেকে বাড়তি সুযোগ সুবিধা পান, তাতে বাধা দেবে না সরকার।

কেন্দ্রের তরফ থেকে রাজ্যের কৃষকদের নামের তালিকা চেয়ে পাঠানো হয়েছিল। সেই তালিকা পাঠিয়েছে মমতা সরকার। তবে কৃষকদের নামের তালিকা পাঠানো হলেও তাদের অ্যাকাউন্ট নম্বর পাঠানো হয়নি! এমনই চাঞ্চল্যকর অভিযোগ তুলল কেন্দ্র। সম্প্রতি কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ রাজ্য সরকারের বিরুদ্ধে তোপ দেগে বলেছেন, মোদি সরকার কৃষকদের সাহায্য করতে চান। কিন্তু মমতা সরকার তা হতে দিতে চাইছে না।

পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রীর বিরুদ্ধে সরাসরি প্রতারণার অভিযোগ তুলেছেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। একই অভিযোগ তুলেছেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী স্মৃতি ইরানি। মমতা সরকারের বিরুদ্ধে কটাক্ষ হেনে তিনি বলেছেন, কেন্দ্রের এই প্রকল্পে কাটমানির সুযোগ নেই। তাই মুখ্যমন্ত্রী রাজ্যে এই প্রকল্প বাস্তবায়িত হতে দিতে চাইছেন না।