ইনস্টাগ্রামে নিজের দুর্বলতার কথা শেয়ার করলেন অভিনেত্রী রচনা ব্যানার্জি

10
ইনস্টাগ্রামে নিজের দুর্বলতার কথা শেয়ার করলেন অভিনেত্রী রচনা ব্যানার্জি

বাংলা টলিউড ইন্ডাস্ট্রিতে একটা সময় বহু জনপ্রিয় অভিনেতা অভিনেত্রী যারা এই বাংলা ইন্ডাস্ট্রিকে চালিয়ে নিয়ে গিয়েছিলেন, তাঁদের মধ্যে উল্লেখযোগ্য একটি নাম হল রচনা ব্যানার্জি। যিনি আজও সমানভাবে গ্ল্যামার দিয়ে তার ভক্তদের আকৃষ্ট করে রেখেছেন।

রচনা ব্যানার্জীর ফিল্ম ক্যারিয়ার যথেষ্ট উজ্জ্বল, অনেক হিট মুভি বাংলা ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রিকে দিয়েছেন, এক সময়ের হিট জুটি ছিল বুম্বাদা রচনা ব্যানার্জীর। বরাবরই রচনা ব্যানার্জীর রূপের ছটায় পুরুষদের মনে বসন্তের ছোঁয়া লাগতো, এখনো লাগে, বর্তমানে তিনি এক নম্বর সঞ্চালিকা খেতাব জয় করেছেন। বাঙালির ঘরে ঘরে এখন রচনা ব্যানার্জি বলতেই যা মনে পড়ে তা হলো, দিদি নাম্বার ওয়ান, যাকে ছাড়া দিদি নাম্বার ওয়ান ভাবাই যায় না। ঠিক যেমন দাদাগিরি মানেই সঞ্চালকের ভূমিকায় মনে পড়ে সৌরভ গাঙ্গুলীর নাম। কিছু কিছু ক্ষেত্রে এমন থাকে, যেখানে তাদের ছাড়া অন্য কাউকে বড্ড বেমানান লাগে।

এই রচনা ব্যানার্জি নিজস্ব ইনস্টাগ্রাম প্রোফাইল যথেষ্ট সক্রিয়, ইনস্টাগ্রামে ফলোয়ার সংখ্যাও কম নেই সাত মিলিয়ন। বিভিন্ন সময়ে তার জীবনে ঘটে যাওয়া বিভিন্ন কিছু শেয়ার করে নিয়েছে নিজের ভক্তদের সাথে এবং তিনি যথেষ্ট সোশ্যাল সাইটে একটিভ থাকেন। ভক্তদের বিভিন্ন সময় মনোরঞ্জন করে থাকেন, সেদিকটা তিনি বেশ সক্রিয় ভাবে খেয়াল রাখেন। তবে প্রতিটা মানুষেরই কিছু না কিছু দুর্বলতা থাকে, শুধু তারা নিজেকে নিজের মধ্যে অনুসন্ধান করে নেন।

রচনা ব্যানার্জীর নিজের দুর্বলতা সম্পর্কে যথেষ্ট সজাগ, ইনস্টাগ্রামে একটি পোস্ট দিয়েছেন যেখানে দেখা যাচ্ছে, হোটেলের এক টেবিলে বসে সামনে কিছু প্লেটে মিষ্টি রাখা, তিনি নিজেই বলছেন সামনে এরকম মিষ্টি থাকলে নিজেকে কন্ট্রোল করা খুব মুশকিল হয়ে পড়ে, অর্থাৎ তিনি মিষ্টি লাভার।

বাঙালি মানেই একটু মিষ্টি খেতে ভালোবাসি, তবে মিষ্টি পাগল মানুষদের সামনে মিষ্টি থাকলে নিজে আনকন্ট্রোল হয়ে যাই আমরা, ঠিক তেমনি রচনা ব্যানার্জীরও ঘটেছে। অভিনেত্রী বলে কি আর তিনি আর পাঁচজন সাধারণ মানুষের মতো হতে পারেন না? সেটাই স্বাভাবিক তিনিও আমাদের মত সাধারণ মানুষই মিষ্টি বিলাসী। যেমন মিষ্টি, দেখতে তেমনি মিষ্টি কথাবার্তা, বাচনভঙ্গি, ঠিক তেমনি মিষ্টি বিলাসী তিনের সমন্বয়ে কি অদ্ভুত মিলন।