স্বর্ণ মন্দিরে লঙ্গরখানায় মানবসেবায় ব্রতী হলেন অভিনেত্রী রচনা ব্যানার্জি

51
স্বর্ণ মন্দিরে লঙ্গরখানায় মানবসেবায় ব্রতী হলেন অভিনেত্রী রচনা ব্যানার্জি

টলিউড অভিনেত্রী রচনা ব্যানার্জী পাঞ্জাবের স্বর্ণমন্দিরে দুঃস্থদের মুখে নিজের হাতে খাবার তুলে দিলেন। অভিনেত্রী রচনা ব্যানার্জি বাঙালি দর্শকদের কাছে বেশ জনপ্রিয়। বিগত এক দশকের বেশি সময় ধরে জনপ্রিয় রিয়ালিটি শো ‘দিদি নং ১’ এর জেরে বাংলার ঘরে ঘরে পৌঁছে গেছেন অভিনেত্রী। কিছুদিন আগেই ৪৬ বছর বয়সে পা দিয়েছেন অভিনেত্রী। তবে তাকে দেখে সেটা বোঝা দায়। বয়স বাড়লেও গ্ল্যামারে একটুও ভাটা পড়েনি অভিনেত্রীর।

অভিনেত্রী সোশ্যাল লাইফে বেশ সক্রিয়। নিজের অনুগামীদের প্রতিনিয়ত নতুন নতুন ছবি আর ভিডিও দিয়ে মাতিয়ে রাখেন অভিনেত্রী।

কাজের ফাঁকে ঘুরতে যেতেও বেশ পছন্দ করেন অভিনেত্রী। এবার খানিক ফুরসত পেতেই পাঞ্জাব উড়ে গিয়েছেন রচনা। তবে এবার আর কেবল ঘুরতে গিয়ে নিজের জন্য ‘মি টাইম’ কাটাতে নয়, মানুষের সেবা করেও নিজের জন্য আনন্দ খুঁজে পান অভিনেত্রী। কখনো গাছ লাগিয়ে, কখনো বেড়াতে গিয়ে ব্যস্ত জীবনে খানিক অক্সিজেন খুঁজে নেন রচনা।

দেশজুড়ে করোনা পরিস্থিতি এখনও স্বাভাবিক হয়নি। অনাহার, অর্থকষ্টে এখনও ধুঁকছেন অসংখ্য মানুষ। এই পরিস্থিতিতেই পাঞ্জাবের অমৃতসরের স্বর্ণ মন্দিরে গিয়ে লঙ্গরখানায় মানবসেবায় ব্রতী হলেন অভিনেত্রী। সেখানকার মানুষদের নিজের মুখে খাবার তুলে দিলেন রচনা

পবিত্র গুরুরদুয়ারের নিয়ম মেনে সাদা সালোয়ার কামিজের সাথে তিনি মাথা ঢেকেছিলেন নীল ওড়নায়। নিজের একাধিক ছবি পোস্ট করে রচনা ক্যাপশনে লিখেছেন, “মানবসেবার কাজের সুযোগ পাওয়া অত্যন্ত সৌভাগ্যের ব্যাপার। স্বর্ণমন্দিরের প্রধান গ্রন্থী সিং সাহেব জ্ঞানী জগতার সিং জী আমায় আশীর্বাদ করেছেন। এত সুন্দর একটি উদ্যোগে সামিল করার জন্য সৎনাম ও গুন্নাকে ধন্যবাদ।”

এখনও দেশজুড়ে করোনা পরিস্থিতি স্বাভাবিক হয়নি। অনাহার, অর্থকষ্টে এখনও ধুঁকছেন অসংখ্য মানুষ। এই পরিস্থিতিতেই পাঞ্জাবের অমৃতসরের স্বর্ণ মন্দিরে গিয়ে লঙ্গরখানায় মানবসেবায় ব্রতী হলেন। সেখানকার মানুষদের নিজের মুখে খাবার তুলে দিলেন অভিনেত্রী।