ফের দুর্ঘটনা! ট্রলার ডুবে নিখোঁজ ১০ জন মৎসজীবি, উদ্ধার ২

20
ফের দুর্ঘটনা! ট্রলার ডুবে নিখোঁজ ১০ জন মৎসজীবি, উদ্ধার ২

আরো একবার ঘটে গেল একটি বড়সড় দুর্ঘটনা। বকখালি তে রক্তেশ্বরী চরের কাছে হলো ট্রলার ডুবি। ইতিমধ্যেই উদ্ধার করা হয়েছে মাত্র দুই জনকে। বাকি ১২ জন মৎসজীবিদের মধ্যে নিখোঁজ রয়েছেন ১০ জন। নিখোঁজ মৎস্যজীবীদের উদ্দেশ্য শুরু হয়ে গেছে তল্লাশি। এই প্রসঙ্গে ওয়েস্টবেঙ্গল ইউনাইটেড ফিশারম্যান অ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক বিজন মাইতি জানিয়েছেন, এফবি হৈমবতী নামে ওই ট্রলারটি ৫ দিন আগে সমুদ্রে মাছ ধরতে গিয়েছিল। ট্রলারের মধ্যে ছিলেন মোট ১২ জন মৎসজীবি। আবহাওয়া খুব একটা ভাল না থাকায় বাড়ি ফিরে আসছিল ট্রলারটি। কিন্তু তার মধ্যেই হঠাৎ করে দুর্ঘটনা ঘটে যায়।

রক্তেশ্বরী চরের কাছে ডুবে যায় সম্পূর্ণ ট্রলারটি। সৌভাগ্যবশত আশেপাশে যে মৎস্যজীবীরা ছিলেন তাদের চোখে আসে পুরো ঘটনাটি। তড়িঘড়ি উদ্ধার কাজে নেমে পড়েন তারা। সঙ্গে সঙ্গে উদ্ধার করা হয় দুইজনকে। কিন্তু দুর্ভাগ্যবশত বাকি ১০ জনকে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে না। ট্রলারটিকে ইতিমধ্যেই পারে নিয়ে আসার ব্যবস্থা করা হয়েছে। তার মধ্যে কোন মৎস্যজীবী আটকে আছেন কিনা তা জানতে পারা যাবে ট্রলারটি পারে নিয়ে এলে। তবে যেহেতু অনেকটা দেরি হয়ে গেছে তাই মৃত্যুর আশঙ্কা কিছুটা রয়ে যাচ্ছে।

দিন কয়েক আগে আরো একবার বকখালি তে একই ঘটনা ঘটেছিল। খারাপ আবহাওয়ার কারণে বারবার একই ঘটনা ঘটছে বলে শুনতে পাওয়া যাচ্ছে। আগাম সর্তকতা করা থাকলেও কেন বারবার মৎস্যজীবীরা এইভাবে গভীর সমুদ্র চলে যাচ্ছেন মাছ ধরতে, তা নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে। তবে পেটের দায়ে কার্যত তাদের সমস্ত বাধা-নিষেধ উপেক্ষা করে যেতে হচ্ছে মাঝ সমুদ্রে, এমন অভিমত অনেকের।