দ্রুত শিক্ষক নিয়োগ সম্পন্ন করার দাবীতে মমতা সরকারের বিরুদ্ধে আন্দোলনে নামলো এবিভিপির সদস্যরা

6
দ্রুত শিক্ষক নিয়োগ সম্পন্ন করার দাবীতে মমতা সরকারের বিরুদ্ধে আন্দোলনে নামলো এবিভিপির সদস্যরা

আপার প্রাইমারিতে শিক্ষক নিয়োগ নিয়ে বিতর্ক রাজ্য সরকারের পিছু ছাড়ছে না। প্রায় সাত বছর ধরে এ রাজ্যের শিক্ষিত বেকার সম্প্রদায় এই এক ইস্যু নিয়ে রাজ্য সরকারের প্রতি তাদের বিক্ষোভ প্রদর্শন করে চলেছেন। এবার আপার প্রাইমারিতে শিক্ষক পদে দ্রুত নিয়োগ সম্পন্ন করার দাবি জানিয়ে মমতা সরকারের বিরুদ্ধে আন্দোলনে নেমেছে এবিভিপির সদস্যরা।

সরকারের বিরুদ্ধে এবিভিপির অভিযোগ, বিগত দশ বছর ধরে রাজ্যের শিক্ষক নিয়োগ প্রক্রিয়া স্থগিত রয়েছে। অনেক যোগ্য প্রার্থীর আবেদনের বয়সসীমা পেরিয়ে গিয়েছে। তারা হতাশাগ্রস্ত হয়ে অন্য উপার্জনের পথ খুঁজে নিয়েছেন। এবিভিপির দাবি, শিক্ষিত কর্মপ্রার্থীদের জীবনের দশটা বছর নষ্ট করে দিয়েছে এই সরকার। রাজ্যের স্কুলগুলিতে এই মুহূর্তে কয়েক হাজার শূন্যপদ রয়েছে। কিন্তু নিয়োগ প্রক্রিয়া সম্পন্ন করছে না রাজ্য।

রাজ্য সরকারের প্রতি এবিভিপির সদস্যদের প্রশ্ন, শিক্ষিত সম্প্রদায় কি পড়াশোনার শেষে মাটি কাটার কাজ করেই জীবন ধারন করবেন? তারা আরও বলছেন, শিক্ষকরা সমাজ গড়ার কারিগর। তাদের পরশে গরিব ঘরের ছেলে মেয়েরা শিক্ষিত হতে পারেন। শিক্ষক নিয়োগই যদি না হয়, তাহলে সমাজ শিক্ষিত হবে কি করে? মুখ্যমন্ত্রীকে কটাক্ষ করে তাদের বক্তব্য, মাননীয়া মুখ্যমন্ত্রী চান না রাজ্যের ছেলেমেয়েরা শিক্ষিত হোক।

উল্লেখ্য, আপার প্রাইমারিতে শিক্ষক পদে নিয়োগ প্রক্রিয়াকে কেন্দ্র করে এই মুহূর্তে প্রায় কয়েক হাজার চাকরিপ্রার্থী স্কুল শিক্ষা দপ্তরের সামনে বিক্ষোভ প্রদর্শন করছেন। বিক্ষোভরত চাকরিপ্রার্থীদের বেশ কয়েকজনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। এবিভিপির দাবি, অবিলম্বে ওই চাকরিপ্রার্থীদের নিঃশর্তে মুক্তি দিতে হবে। পাশাপাশি, আপার প্রাইমারিতে শিক্ষক নিয়োগ প্রক্রিয়া দ্রুত সম্পন্ন করার দাবি জানাচ্ছে এবিভিপি।