প্রেমিকার মা’কে নিজের কিডনি দান এক যুবকের! এক মাসের মধ্যেই সম্পর্ক ছিন্ন করলো যুবতী

24
প্রেমিকার মা'কে নিজের কিডনি দান এক যুবকের! এক মাসের মধ্যেই সম্পর্ক ছিন্ন করলো যুবতী
Female and man's hands with red hearts

প্রেমে পড়লে মানুষ কিই না করতে পারে তার কোনো ধারণা নেই। কখনও কখনও প্রেমিকাকে আকাশের চাঁদটাও উপহার দিতে চায় তার প্রেমিক। মেক্সিকোর বাসিন্দা উজেল মার্টিনেজও একরকম তাই করে ফেলেছেন। চাঁদ নয়, প্রেমিকাকে ভালোবেসে তাঁর মাকে নিজের একটা কিডনিই দিয়ে ফেলেছিলেন উজেল! তার জীবনের এই গল্প সিনেমার গল্পকেও হার মানায়।

জানা গিয়েছে, পেশায় শিক্ষক উজেল মার্টিনেজ। এক তরুণীর প্রেমে পড়েছিলেন তিনি। সবকিছু স্বাভাবিকই চলছিল। কিছুদিন আগে হঠাৎ অসুস্থ হয়ে পড়েন উজেলের প্রেমিকার মা। উপায় না পেয়ে সেই সময় তাঁকে নিজের কিডনি দান করেন যুবক। তারপরই আচমকা বদলে যায় উজেল ও তাঁর প্রেমিকার সম্পর্ক। অভিযোগ, ওই তরুণী প্রেমিককে এড়িয়ে যেতে শুরু করেন। কিডনি দেওয়ার এক মাসের মধ্যে উজেলের সঙ্গে সমস্ত সম্পর্ক ছিন্ন করে সে।

শুধু তাই নয়, সেই তরুণী উজেলের সাথে বিচ্ছেদের পর একজনকে বিয়েও করে ফেলেছেন। এরপরই মানসিক ভাবে ভেঙে পড়েন উজেল। ভিডিওর মাধ্যমে নিজের জীবনকাহিনী সকলকে জানান উজেল। ঘটনাটি প্রচুর ভাইরাল হয়েছে নেটদুনিয়ায়। আর তাতেই নেটিজেনদের একাংশ ওই তরুণীর সমালোচনায় মুখর হয়েছে। কেউ কেউ আবার উজেলের প্রতি সমবেদনা জানিয়েছেন। সত্যিই এ দুনিয়াতে সৎ-স্বার্থহীন মানুষ পাওয়া খুবই কষ্টকর, প্রেম তো কোন ছাড়!