নিজের ছয় বছরের শিশু সন্তানকে নৃশংস ভাবে খুন করলেন এক মা

15
নিজের ছয় বছরের শিশু সন্তানকে নৃশংস ভাবে খুন করলেন এক মা

“কু-সন্তান যদি বা হয়, কু-মাতা কখনো নয়!” এমনই একটি প্রচলিত কথা রয়েছে বাংলায়। তবে এই পৃথিবীতে কু-মাতারাও যে সত্যি সত্যিই বিরাজ করেন, তার জ্বলন্ত নিদর্শন মিলল মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সিনসিনাটি শহর থেকে অন্তত ৩৫ কিলোমিটার দূরে অবস্থিত ওহিও জনপদে। নিজের ছয় বছরের শিশু সন্তানকে নৃশংস ভাবে খুন করলেন মা। এতেই ক্ষান্ত হননি তিনি। ছেলের নিষ্প্রাণ শরীরটিকে নদীর গভীর জলে ছুঁড়ে ফেলতেও এতটুকু বাঁধে নি তার!

পুলিশ সূত্রে খবর, রবিবার সকালে ২৯ বছর বয়সী ব্রিটনি গনজে নামক এক মহিলা তার ছয় বছরের ছেলে জেমস হাচিনসনকে পার্কে নিয়ে যান। এরপর সেখানেই গাড়ির চাকায় পিষে জেমসকে হত্যা করে ব্রিটনি। প্রমাণ লোপাটের জন্য এরপর প্রেমিকের সহযোগিতায় জেমসের নিথর শরীরটি ওহিও নদীর জলে ফেলে দেওয়া হয়। তারপরই পুলিশ স্টেশনে পৌঁছে আষাঢ়ে গল্প ফেঁদে বসেন তারা।

তবে তাদের সেই গল্প অবশ্য ধোপে টেঁকেনি। পুলিশ তদন্তে নেমেই তাদের কথায় অসঙ্গতি খুঁজে পেয়ে তাদের দু’জনকেই গ্রেফতার করেছে। ব্রিটনি এবং তার প্রেমিক হ্যামিলটনের আরো দুই সন্তান রয়েছে বলে জানা গিয়েছে। তারা আপাতত স্থানীয় প্রশাসনের হেফাজতেই রয়েছে। কি কারনে জেমসকে এইভাবে অকালেই মায়ের হাতের নির্মমভাবে প্রাণ হারাতে হলো, তা অবশ্য এখনও স্পষ্ট নয়।

পুলিশের তরফ থেকে জানানো হয়েছে, ছোট্ট শিশুটির নিথর শরীরটি এখনো উদ্ধার করা সম্ভব হয়নি। ওহিও নদীর গভীর জলে তার সন্ধান চলছে। নদীটি অত্যন্ত গভীর এবং নদীতে অত্যন্ত স্রোত থাকার দরুন জেমসকে এখনো উদ্ধার করা সম্ভব হয়নি। জেমসের সন্ধানে সবরকম প্রচেষ্টা চালাচ্ছে স্থানীয় প্রশাসন। ছোট্ট শিশুটির এমন নির্মম পরিণতি মেনে নিতে পারছেন না প্রতিবেশীরা।